আজ-২০শে মার্চ, ২০১৯ ইং

সাংবাদিক নির্যাতন ও হয়রানি বন্ধে ৫৭ ধারা বাতিলের দাবীতে বিভিন্ন জেলা উপজেলায় আইনমন্ত্রীর নিকট বিএমএসএফ’র স্মারকলিপি প্রদান

ঢাকা, ১৭ জুলাই ২০১৭:
কেন্দ্রীয় ঘোষিত কর্মসূচীর অংশ হিসেবে সোমবার সারাদেশের বিভিন্ন জেলা/উপজেলায় আইনমন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি পাঠিয়েছেন বাংলাদেশ মবস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ)। সংগঠনটির ৫ম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপনকালে বিএমএসএফ’র সারাদেশের শাখা কমিটির নেতৃবৃন্দ ৫৭ ধারা বাতিলের দাবী তোলেন। এই দাবীর প্রেক্ষিতে ১৫ জুলাই কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি শহীদুল ইসলাম পাইলট ও সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর দাবীটিকে সাংবাদিকদের প্র্রানের দাবী মনে করে ১৭-২০ জুলাই সারাদেশ থেকে আইনমন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি পাঠানোর ঘোষণা দেন। নেতৃবৃন্দ বলেন সাংবাদিক নিপিড়নকারী ৫৭ ধারা বাতিলসহ দেশে পেশাগত সাংবাদিকের তালিকা প্রনয়ন ও সাংবাদিক নির্যাতন বন্ধে যুগোপযোগী অাইন প্রনয়নের দাবী জানিয়ে স্মারকলিপি প্রদানের কর্মসূচি ঘোষনা করে।
কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসাবে সোম-বৃহস্পতিবার সারাদেশের বিভিন্ন জেলা ও উপজেলায় জেলা প্রশাসক/উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে মাননীয় আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রীর নিকট স্মারকলিপি প্রদান করে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) গাইবান্ধা জেলা কমিটির নেতৃবৃন্দু। এ সময় গাইবান্ধা জেলা প্রশাসক গৌতম চন্দ্র পাল বন্যায় দূর্গতদের ত্রান সহায়তা বিতরণে কার্যালয়ের বাইরে থাকায় জেলা প্রশাসকের পক্ষে বিএমএসএফ এর স্মারকলিপি গ্রহন করেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট রোখছানা বেগম। স্মারকলিপি প্রদান করেন বিএমএসএফ গাইবান্ধা জেলার শাখার আহবায়ক আব্দুল হান্নান আকন্দ, সদস্য সচিব জাভেদ হোসেন, সদস্য সাংবাদিক সিরাজুল ইসলাম রতন, সাংবাদিক আশরাফুল ইসলাম, বিশিষ্ট লেখক ও কলামিষ্ট বজলার রহমান রাজা, পলাশবাড়ী উপজেলা বিএমএসএফ নেতা সাংবাদিক আশরাফুজ্জামান প্রমুখ। এদিকে তথ্য প্রযুক্তি আইনের ৫৭ধারা বাতিলের দাবীতে নীলফামারীতে স্মারকলিপি দিয়েছে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম(বিএমএসএফ) এর স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।
সোমবার দুপুরে নীলফামারী সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেনের কাছে স্মারকলিপিটি হস্তান্তর করা হয়। স্মারকলিপি প্রদানে নেতৃত্ব দেন সংগঠনের জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও কেন্দ্রীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক নুর আলম। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি মোশাররফ হোসেন ও সদস্য আব্দুর রশিদ শাহ। স্মারকলিপি গ্রহণ করে ইউএনও শেখ মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেন আইনমন্ত্রী বরাবর প্রেরণের আশ্বাস দেন সংগঠনের প্রতিনিধিদের। সারাদেশের ন্যায় নওগাঁর বদলগাছীতে ৫৭ ধারা বাতিলের দাবিতে মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম আইন মন্ত্রীর নিকট স্মারক লিপি প্রদান করেন। নেতৃবৃন্দ তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধরা বাতিলের দাবিতে বদলগাছী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ হুসাইন শওকত এর মাধ্যমে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় আইনমন্ত্রী বরাবর স্মারক লিপি প্রদান করেন।
সোমবার দুপুর ১২ টায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে স্মারকলিপি প্রদান করেন বদলগাছী প্রেসক্লাব সভাপতি ও বিএমএসএফ-এর বদলগাছী উপজেলা শাখার সদস্য মোঃ এমদাদুল হক দুলু ও বিএমএসএফ-এর বদলগাছী শাখার আহ্বায়ক মোশারফ হোসেন পিন্টু এ স্মারক লিপি প্রদান করেন। স্মারক লিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন বিএমএসএফ বদলগাছী উপজেলা শাখার যুগ্ম আহ্বায়ক ও বদলগাছী প্রেসক্লাবের সদস্য হাফিজার রহমান, বদলগাছী প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও বিএমএসএফ-এর বদলগাছী শাখার সদস্য মোঃ ছরোয়ার হোসেন সুমন, বদলগাছী প্রেসক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক ও বিএমএসএফ-এর সদস্য মোঃ খালিদ হোসেন মিলু, বদলগাছী প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক সানজাদ রয়েল সাগর, কার্যনির্বাহী সদস্য মোঃ আরমান হোসেনসহ সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ।
নেতৃবৃন্দ সরকারকে বলেন, চলমান তথ্যপ্রযুক্তি আইনে ৫৭ ধরা বিদ্যমান থাকলে দেশের সাংবাদিক বৃন্দ ও গণমাধ্যম সমূহ রাষ্ট্র ও সমাজের অন্যায় ও অনিয়মের তথ্য তুলে ধরতে পারবে না। অনতিবিলম্বে এই ৫৭ ধারা বাতিল করে সাংবাদিকদের তথ্য সংগ্রহ কাজে ও সংবাদ প্রকাশে সহায়তা করতে উক্ত ধারাটি বাতিল করতে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেন সাংবাদিকরা। উল্লেখ্য,সারাদেশে সরকারি অথবা বেসরকারি প্রতিটি দপ্তরে যারা চাকরি করেন তাদের বেতন ভাতা সেই অনুযায়ী ভোগ করেন কিন্তু একজন সাংবাদিক তার পরিশ্রমের জন্য বিনিময়ে কোন পারিশ্রমিক পান না। বরং সংবাদ সংগ্রহের সময় একজন সাংবাদিক বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় এরপর কোন অনৈতিক কাজের উপর সংবাদ প্রকাশ করায় সাংবাদিকের বিরুদ্ধে তথ্য অাইনে ” ৫৭ ধারায়” মামলা দেয়া হয় যা কোন তদন্ত ছাড়াই পুলিশ অাটক করে হাজতে প্রেরন করে। এরপর অনির্ধারিত সময় জেল হাজতে থাকতে হয়। তাই এই ” ৫৭ ধারা ” বাতিল সহ সারাদেশে পেশাদার সাংবাদিকদের দ্রুত তালিকা প্রনয়ন ও সাংবাদিক নির্যাতন বন্ধে যুগোপযোগী অাইন প্রনয়ন সহ ১৪ দফা দাবী অাদায়ের লক্ষে সকল পেশাদার সাংবাদিককে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সরকারের প্রতি উদ্বাত্ব অাহবান জানানোর অনুরোধ জানান বিএমএসএফ কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দ।সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ বলেন, সারাদেশের বিভিন্ন স্থানে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে তথ্য অাইনের ৫৭ ধারায় মামলা সহ হয়রানি মূলক মামলা করা হয়েছে। যে সকল মামলায় পূর্ব তদন্ত ব্যতিরেকেই সাংবাদিকদের হয়রানি করাসহ গ্রেফতার করা হচ্ছে। তাই অবিলম্বে তথ্য প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারা বাতিল করে সাংবাদিক নির্যাতন বন্ধে যুগোপযোগী অাইন প্রনয়নএবং সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে সাংবাদিকের পেশাগত কাজে সহযোগীতা করার জন্য দেশবাসীসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে অাহবান জানানো হয়। কর্মসূচীর প্রথম দিনে বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলা উপজেলা থেকে স্মারকলিপি পাঠানো হয় এবং এ কর্মসূচী ২০ জুলাই পর্যন্ত চলবে বলে সংগঠনটির কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

পিআইবি’র মহাপরিচালক শাহ-আলমগী’র মৃত্যুতে এসএসপি’র শোকসভা

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ (পিআইবি)এর মহাপরিচালক বিশিষ্ট সাংবাদিক মোঃ শাহ আলমগীর এর মৃত্যুতে আজ ...

ব্রেকিং নিউজঃ