তালতলীতে পচা মাংস বিক্রি জনতার গণধোলাই,মোবাইল কোর্টে জরিমানা

প্রকাশিত: ৩:৪৮ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১, ২০২০

তালতলীতে পচা মাংস বিক্রি জনতার গণধোলাই,মোবাইল কোর্টে জরিমানা
মোঃ হাইরাজ বরগুনা প্রতিনিধি :- বরগুনা তালতলীতে গরুর পচা মাংস বিক্রি করায় কসাই জালাল কে জনগণে গনধোলাই দিয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত সোপর্দ করেন । পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। বুধবার(০১ এপ্রিল) সকালে পচা মাংস বিক্রি করার সময় স্থানীয় জনগণ হাতেনাতে ধরে গনধোলাই দেয়। পরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সেলিম মিঞা ভ্রাম্যমাণ আদালতে এ জরিমানা করা হয়। তালতলী এলাকার মৃত্যু ওহাব আলী ছেলে কসাই জালাল। স্থানীয় সূত্রে যায়,উপজেলা সদর বাজারে সকালে জালাল কসাইখানা বসে গরু জবাই করে ২০কেজি মাংসের সাথে পুরাতন ২ কেজি পচা মাংস বিক্রি করে ক্রেতা আবুছালের কাছে। এ সময় আবুছলে বাড়ি মাংস নিয়ে গেলে সেখানে পচা মাংস বের হয়ে আসে। পরে দুই কেজি পরিমাণ পচা মাংস নিয়ে জালাল কসাইর দোকানে আসলে, স্থানীয় জনগণ কসাই জালালকে মারধর করে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে হস্তান্তর করে। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে কসাই জালালকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করেন ও ভবিষ্যৎ এমন কাজ না করার সতর্ক করেন। এদিকে স্থানীয় জনগণ ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন এই কসাই জালাল বিগত দিনে মাংসের সাথে পানি মেশানো,পচা মাংস বিক্রিসহ সাধারণ ক্রেতাদের হয়রানি করে আসছে। আইনের প্রতি সম্মান জানিয়ে তারা বলে এই অপরাধের জন্য এ জরিমানা সামান্য হয়েছে। তবে জেল হলে ভালো হতো ভবিষ্যৎ আর কোনদিন এ কাজ করতো না। এ বিষয় উপজেলা নির্বাহী অফিসার ভারপ্রাপ্ত সেলিম মিঞা বলেন, পচা মাংস বিক্রি দায়ে কসাই জালাল কে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আর জনগণ অনেক কথা বলতে পারে। তবেবে ভোক্তা অধিকার আইনে ও আমার কাছে এই প্রথম বার তার অপরাধ বিষয়ে প্রমাণিত হয়েছে তাই তাক এ জরিমানা করা হয়। আর ভবিষ্যৎ তাকে এই ধরনের কাজ থেকে বিরত থাকার জন্য সতর্ক করা হয়েছে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

মুজিব বর্ষ

Pin It on Pinterest