উলিপুরে প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষকের কবর দখল করে বসতঘর,ঝাকুয়পাড়া গ্রাম সন্ত্রাসীদের অভয়ারণ্য

প্রকাশিত: ১২:৩৩ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০

উলিপুরে প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষকের কবর দখল করে বসতঘর,ঝাকুয়পাড়া গ্রাম সন্ত্রাসীদের অভয়ারণ্য

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি :

কুড়িগ্রামের উলিপুরে বরেণ্য শিক্ষক আছাব্বর আলী ওরফে খোকা মাস্টার এর সমাধি দখল করে তার ওপর বসত ঘর নির্মান, সন্তানদের ভিটে ছাড়া, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আজিজ সরকারকে লাঞ্চিত, বীর মুক্তিযোদ্ধার বাড়িঘর ভাংচুর, সালাম নামের একজনের জমি দখল করে বাড়িঘর উচ্ছেদ,গরু চুরি করে গরুর মালিককে উচ্ছেদের হুমকিসহ মারপিটের ঘটনা ঘটেছে।

জানা গেছে, উলিপুর উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের গোড়াই রঘুরায় ঝাকুয়াপাড়া গ্রামের সাবেক সেনাসদস্য আলতাফ হোসেনের স্ত্রী হাসিনা বেগম বাড়িতে তালা দিয়ে স্বামী ও সন্তান নিয়ে জেলা শহরে চিকিৎসকের কাছে যান । এই সুযোগে প্রায় দুইমাস আগে দিনে-দুপুরে দুইটি গরু নিয়ে যায় মাহাবুব গংদের একাংশ। এ বিষয়ে হাসিনা বেগম বাদী হয়ে উলিপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলা নং-১৯০/২০ ।

এব্যাপারে বিভিন্ন কৌশলে একই গ্রামের প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মাহাবুব রহমানের মনপুত কথিত কিছু জ্ঞানী গুনি ব্যক্তিদের দিয়ে লোক দেখানো মিটিং করেন। মিটিংয়ে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ এনে বাদী হাসিনা বেগম পাতানো মিটিং বয়কট করে চলে যান।

পরে হাসিনা বেগম তার স্বামীর উপর হামলা ও মারপিট এবং নিরাপত্তাহীনতার ঘটনায় ২২ জনকে অভিযুক্ত করে কয়েকটি অভিযোগ দাখিল করেন উলিপুর থানায়।

অভিযোগ দাখিলের পরে স্বাক্ষীকে মারধরের ঘটনা ঘটে। এরই প্রেক্ষিতে মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর অতিরিক্ত পুলিশসুপার উলিপুর সার্কেল মোঃ আল মাহমুদ হাসানের নেতৃত্বে একদল পুলিশ দিনব্যপী দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ায় ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

এদিকে এলাকায় পুলিশ আসাকে কেন্দ্র করে বীর মুক্তিযোদ্ধা, সাবেক সেনাসদস্য, মুক্তিযোদ্ধা জাদুঘর ও ধানমন্ডি ৩২ নম্বর বঙ্গবন্ধু ট্রাস্টের দাতা সদস্য মোঃ আব্দুল আজিজ সরকারকে ২৩ সেপ্টেম্বর বুধবার সকালে প্রাত:ভ্রমণের সময় অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও লাঞ্চিত করে হাসিনা বেগমের দায়ের করা অভিযোগ পত্রের অভিযুক্ত মাহাবুব ও রফিকুল গংরা ।

এসময় স্থানীয়রা এগিয়ে এলে সন্ত্রাসীরা স্থান ত্যাগ করে। এ ব্যাপারে উলিপুর থানায় একটি জিডি দায়ের করেছেন মুক্তিযোদ্ধা আঃ আজিজ সরকার।

সাম্প্রতিক সময়ে ওই এলাকার মাহাবুব, রফিকুল, হারুন গংদের বিরুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আজিজকে একটি মিথ্যে মামলায় ফাঁসিয়ে ৪ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ রয়েছে।

জানাগেছে, উল্লিখিত মাহাবুব গংরা এলাকায় অবৈধ প্রভাব খাটিয়ে অব্যাহতভাবে নানা অপকর্ম চালিয়ে আসছে। এরই ধারাবাহিকতায় হাসিনা বেগমের গরু চুরি, বাড়িঘর ভেঙ্গে দেয়ার হুমকিসহ মারপিটের মত ঘটনা ঘটায়। এছাড়াও এই চক্রটির ইন্ধনে জাহাঙ্গীর গং উলিপুরের বরেণ্য শিক্ষক মরহুম আছাব্বর আলী ওরফে খোকা মাস্টারের কবর দখল করে তার কবরের ওপর ঘর নির্মান করে পরিবারের সদস্যদের ভিটে ছাড়া করেছে। এ ব্যাপারে মরহুম খোকা মাস্টারের ছেলে আব্দুল মালেক ও মেয়ে শামসুন্নাহার বেগম জানান, কবর দখলের ঘটনাটি আমাদের হৃদয়ে অবারিত রক্তক্ষরণ হচ্ছে। এ বিষয়টিকে আমরা ৮ ভাইবোন কোনভাবেই মেনে নিতে পারছি না। তাদের দখল থেকে অব্যাহত চেষ্টার পরও উদ্ধার করতে পারছিনা। বিভিন্ন ধর্মীয় উৎসবে বাবার কবর জিয়ারত করার সুযোগ নেই জানিয়ে তারা আরও বলেন, কবরটির ওপরে খড়ের গাদা করে একপ্রকার প্রতিহিংসা চরিতার্থ করছে।

উল্লেখ্য হাসিনা বেগমের দায়েরকৃত অভিযোগপত্রে ২২ আসামীর মধ্যে হারুনর রশিদ হারুন বিগত সময়ে জেলাপ্রশাসক হাবিবুর রহমানকে দুর্গাপুরে লাঞ্চিত করার সাজাপ্রাপ্ত ২ নং আসামী। বর্তমানে হাইকোর্টের জামিন আদেশে এলাকায় বিভিন্ন অপকর্মে লিপ্ত রয়েছেন। এছাড়াও ইতোপূর্বে একাধিক মহিলাকে মারধরের ঘটনাও ঘটিয়েছে।

এব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশসুপার উলিপুর সার্কেল মোঃ আল মাহমুদ হাসান বলেন, অনেকগুলি অভিযোগর বিষয়ে তদন্ত করা হয়েছে। তদন্তাধীন বিষয়ের ব্যাপারে কোনকিছু বলতে অপারগতা প্রকাশ করে, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল আজিজের লাঞ্চিত হবার ব্যাপারে একটি জিডি গ্রহনের কথা জানান ।


এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

মুজিব বর্ষ

Pin It on Pinterest