‘ট্রুকলার’-এর দিন কি তবে ঘনিয়ে এল?

প্রকাশিত: ১১:২০ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৯, ২০২১

‘ট্রুকলার’-এর দিন কি তবে ঘনিয়ে এল?

সান ফ্রান্সিসকো: ‘ট্রুকলার’-এর দিন কি তবে ঘনিয়ে এল? একটি ইউটিউব বিজ্ঞাপনের জেরে এমনই আলোচনা শুরু হয়েছে গ্যাজেট গুরুদের মধ্যে। বিষয়টি ঠিক কী? শোনা যাচ্ছে, কলিং অ্যাপটিকে ঢেলে সাজিয়েছে গুগল। নাম বদলে হয়েছে ‘গুগল কল’। শুধুমাত্র ফোন করা বা রিসিভ করাই নয়, নতুন এই অ্যাপটি কলারের নাম, কোন এলাকার নম্বর তাও জানিয়ে দিতে পারবে বলে দাবি করছে বিশ্বের একাধিক গ্যাজেট সংক্রান্ত তথ্যপ্রদানকারী সংস্থাগুলি। ফলে সরাসরি এর প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে সুইডিশ সংস্থা ‘ট্রুকলার’-এর সঙ্গে।

এক ‘রেডইট’ সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারী ইউটিউবে ‘গুগল কল’-এর বিজ্ঞাপনটি প্রথম দেখেন। তিনিই নেটিজেনদের এবিষয়ে জানিয়েছেন। বিজ্ঞাপনটিতে নাকি অ্যাপটি ডাউনলোডের লিঙ্কও দেওয়া ছিল। ফোনবুকে সেভ না থাকা নম্বর থেকে ফোন এলে সেই নম্বর ব্যবহারকারীর তথ্য দেয় ‘ট্রুকলার’। ব্যবহারকারী নিজে ‘ট্রুকলার’-এ প্রোফাইল খুলতে পারেন। প্রোফাইল না থাকলে অন্য স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর ফোনে সংশ্লিষ্ট নম্বরটি যে নামে সেভ করেছেন সেই নামই তৃতীয় পক্ষের রিসিভারকে দেখিয়ে দেয় ‘ট্রুকলার’।


এই বিশেষ পরিষেবার জন্য ইতিমধ্যেই গোটা বিশ্বের স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়েছে অ্যাপটি। গুগলের ফোন অ্যাপেও কলার আইডি রয়েছে ঠিকই, তবে তা ‘ট্রুকলার’-এর মতো নির্ভুল নয়। ‘গুগল কল’ সম্ভবত সেই ‘মার্জিন অব এরর’-এর সম্ভাবনা অনেকটাই কমিয়ে দিয়ে সরাসরি চ্যালেঞ্জ জানাবে ‘ট্রুকলার’-কেই। যদিও গুগলের পক্ষ থেকে এখনও ‘গুগল কল’ নিয়ে টুঁ শব্দটি করা হয়নি। প্লে স্টোরেও নেই অ্যাপটি। তবে গুঞ্জন শুরু হয়ে গিয়েছে। গত অক্টোবরে গুগল তাদের একাধিক পরিষেবাকে ঢেলে সাজানোর ঘোষণা করেছিল। ইতিমধ্যে ড্রাইভ, জিমেল, মিট, ডকস, চ্যাট, ক্যালেন্ডার ও কিপের নতুন লোগো এসে গিয়েছে।


পরিষেবাও আগের থেকে উন্নত হয়েছে। গ্যাজেট গুরুদের বক্তব্য, ‘গুগল কল’ যদি সত্যিই কলার আইডি পরিষেবাকে উন্নত করে ফেলে তবে অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীদের মধ্যে ‘ট্রুকলার’-এর জনপ্রিয়তা নিমেষে কমে যাবে। কারণ, একই পরিষেবা পাওয়া দু’টি অ্যাপ অধিকাংশ ইউজারই তাঁর ফোনে রাখতে চাইবেন না। ফোন করার জন্য রাখতেই হবে ‘গুগল কল’। সে ক্ষেত্রে কপাল পুড়তে পারে ‘ট্রুকলার’-এর।


মুজিব বর্ষ

Pin It on Pinterest