ফকিরহাটের বিপনী বিতানগুলোায় নেই বেচাকেনা,বিপাকে মালিক ও শ্রমিকেরা

জুলাই ৩১ ২০২০, ১৬:২৭

মো: সাগর মল্লিক
বাগেরহাট প্রতিনিধি

আগামীকাল পবিত্র ঈদুল আযহা। কিন্তু বৈশ্বিক মহামারী করোনার
ভাইরাসের কারণে এবারের ঈদুল আযহায় নেই কোন আমেজ। বাগেরহাটের
বিপনী বিতান গুলোতেও জমে ওঠেনি কেনাবেচা। এক প্রকার অবসরেই
দিন পার করছে জেলার বিপনী বিতানের মালিক ও কর্মচারীরা। আগামী
শনিবার (০১ আগষ্ট) পবিত্র ঈদুল আযহা । মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের ত্যাগের
মহিমায় পালিত হয় পবিত্র ঈদুল আযহা। আর এই ঈদুল আযহায় দেশের
বিভিন্ন প্রান্তের বিপনী বিতানগুলো জমে ওঠে এক সপ্তাহ আগে
থেকেই। কিন্তু এবারের চিত্র পুরোপুরি ভিন্ন। দু একজন ক্রেতা আসলেও
দরদামে না পড়াই চলে যাচ্ছে ভিন্ন দোকানে। যেখানে জমজমাট থাকার
কথা বিপনী বিতান সেখানে ক্রেতা শূন্যের কোঠায় থাকার ফলে দোকান
খোলা রেখেই বাইরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন দোকানী । আবার দেখা গিয়েছে
হতাশায় দোকানের ভিতরেই ঘুমিয়ে আছেন দোকানি। জেলার বিপনী
বিতান গুলোই স্বাস্থ্যবিধির কথা মাথায় রেখে অধিকাংশ মার্কেটেই
স্থাপন করা হয়েছে ইলেকট্রিক স্প্রে মেশিন। কিন্তু ক্রেতা না থাকায়
সেটিও রয়েছে অচল। হতাশা আর গøানির মাঝে এসকল বিপনী বিতানের
মালিক ও কর্মচারীরা পরিবার পরিজন নিয়ে রয়েছে কষ্টে। কেনাবেচা
শ্যুন্যের কোঠায় থাকার পরেও অনেক মালিক এখনো চালিয়ে যাচ্ছেন তার
কর্মচারীদের। তবে এভাবে যদি বেশিদিন চলে তবে পথে বসার উপক্রম হবে
তাদের। সামাজিক দুরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনেই জমজমাট হয়ে উঠুক
ঈদের বাজার আর কেনাবেচায় স্বচ্ছলতা ফিরে আসুক প্রতিটি বিপনী
বিতানে। তাহলেই এবারের কোরবানী ঈদে কিছুটা স্বাচ্ছন্দ্যে পরিবার
পরিজন নিয়ে কাটাতে পারবে বিপনি বিতানের মালিক ও কর্মচারীরা।
এমটাই প্রত্যাশা সকলের।

40

SHARES

মুজিব বর্ষ

আমাদের ফেসবুক পেজ


ভিন্ন খবর আরও