মুক্তাগাছায় ভাইয়ের চলাচল বন্ধ করল ভাই l

প্রকাশিত: ১০:৩০ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ৪, ২০২১

মুক্তাগাছায় ভাইয়ের চলাচল বন্ধ করল ভাই l

মোবারক হোসেনঃ ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলার দাওগাঁও ইউনিয়নের চন্দনীআটা গ্রামে মামলা তুলে নিতে হুমকি প্রদানসহ মামলার বাদী ও স্বাক্ষীর পরিবারের চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। মামলার বাদী মোসলেম উদ্দিন (৫৫) ও বিবাদী আঃ ছালাম (৫০) উভয়ই এলাকার মৃত তালেব আলীর ছেলে। পারিবারিক দ্বন্দ্ব ও মামলার জেরে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে দিয়েছে তার ভাই মামলার বিবাদী আব্দুস সালামের পরিবার। মামলা তুলে নেওয়াসহ মামলার স্বাক্ষীর নাম পরিবর্তন করতে বাধ্য করতেই এমন ঘটনা ঘটানো হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানান।

সরে জমিনে দেখা যায়, আঃ ছালাম পারিবারিক ভাবে শক্তিশালী হওয়ায় মোসলেম উদ্দিন ও তার পরিবারের লোকজনকে বাড়ি থেকে বাহির হওয়ার রাস্তা বন্ধ করে রেখেছে। এতে করে সকল ধরনের কাজ কর্ম ও পশুপালনে বাধাগ্রস্ত হচ্ছেন মোসলেম উদ্দিনের পরিবার। এমনকি খাবার পানির জন্য তাদের নিজের টিউবওয়েলও যেতে পারছেন না তারা। এ ঘটনায় পারিবারিক ভাবে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

মোসলেম উদ্দিন বলেন, আমার বড় কোন ছেলে সন্তান নাই তাই আমি পারিবারিক ভাবে শক্তিশালী না হওয়ায় আমার বাড়ির রাস্তা বন্ধ করেছে আমার ভাই। পূর্বের একটি মামলা তুলে না নেওয়ায় তারা আমাকে কোনঠাসা করার জন্য এমন করেছে। প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা রাস্তার জমি নিজের বলেও দাবি করেন আব্দুস সালাম।
এ বিষয়ে জানতে চাইলে আব্দুস সালামের উপস্থিতিতে তার ছেলে সিরাজুল ইসলাম বলেন, রাস্তার জমি আমাদের, পূর্বের কোন শত্রুতা ও পেশী শক্তির জোড়ে এটি বন্ধ করা হয়নি। এখানে শাকসবজির বীজ বপন করা হবে, তাই গবাদিপশু ও হাঁস-মুরগির থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য রাস্তা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।
প্রতিবেশী মকবুল হোসেন বলেন, রাস্তাটি বন্ধ হওয়ায় বাড়ির কাজ কর্ম করতে পারছি না। ফসলি জমি থেকে ফসল ঘরে তুলছে পারছি না। পূর্বের মামলা ও বর্তমানে সদ্য সমাপ্ত ইউপি নির্বাচনে দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থনকে কেন্দ্র করেই এই প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করা হয়েছে।
এই বিষয়ে মুক্তাগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মাহমুদুল হাসান জানান, এখন পর্যন্ত থানায় কেউ অভিযোগ নিয়ে আসেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।


মুজিব বর্ষ

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Pin It on Pinterest